Press Release 10-02-2019

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন

জনসংযোগ শাখা

চট্টগ্রাম।

প্রেস বিজ্ঞপ্তি

চসিকের অমর একুশের বই মেলার উদ্বোধনে তথ্যমন্ত্রী

নতুন প্রজন্মকে আত্মপ্রত্যয়ী হতে

বই পড়ার প্রতি আগ্রহী করতে হবে।

চট্টগ্রাম- ১০ ফেব্রæয়ারি- ২০১৯ইংরেজী।

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের তথ্যমন্ত্রী . হাছান মাহমুদ এমপি বলেছেন, নতুন প্রজন্মকে আত্মপ্রত্যয়ী হতে বই পড়ার প্রতি আগ্রহী করতে হবে। অবাধ তথ্য প্রবাহের এই যুগে ইন্টারনেট সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ব্যবহার আজকের বাস্তবতা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের কারণে দুনিয়াব্যাপী যে পরিবর্তন তার ইতিবাচক নেতিবাচক পরিবর্তন দুইই রয়েছে। তাই ব্যাপারে অভিভাবকদের সন্তানদের স্বার্থে সচেতন থাকতে হবে। তিনি আজ রোববার বিকেলে নগরীর সিজেকেএস জিমনেসিয়াম প্রাঙ্গনে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন আয়োজিত সৃজনশীল প্রকাশনা পরিষদের সহযোগিতায় অমর একুশে বই মেলার উদ্বোধন আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে কথা বলেন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব  নাছির উদ্দীন। চসিক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সামসুদ্দোহা অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন।  এতে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন শিক্ষা স্বাস্থ্য স্ট্যান্ডিং কমিটির চেয়ারম্যান বই মেলা কমিটির আহবায়ক কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউক, মেলা কমিটির সদস্য সচিব চসিকের প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা সুমন বড়য়া, সৃজনশীল প্রকাশক পরিষদ চট্টগ্রামের সভাপতি মেলা কমিটির যুগ্ম আহবায়ক মহিউদ্দিন শাহ আলম নীপু, যুগ্ম সচিব লেখক গবেষক জামাল উদ্দীন। অনুষ্ঠানে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর, সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর, সৃজনশীল প্রকাশক পরিষদের নেতৃবন্দ,সাংবাদিক, শিক্ষক,বুদ্ধিজীবী, কবি, লেখক এবং কর্পোরেশনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যমন্ত্রী . হাছান মাহমুদ বলেন, আগেও চট্টগ্রামে বই মেলা হতো। তবে এতো বড় পরিসরে আয়োজন হয়নি। এবারের চসিকের আয়োজনে বই মেলার স্থান নির্ধারন ঢাকার উল্লেখযোগ্য প্রকাশকদের আশানুরূপ অংশগ্রহনে চট্টগ্রামের সন্তান হিসেবে আমি খুবই খুশি। তিনি বলেন বাঙালিরা মেধাবী, ইউরোপের বাইরে বাঙালিদের মধ্যে প্রথম নোবেল পান রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর। তেমনি গাছে প্রাণের স্পন্দন, বিশ্বের বড় ভবনের স্থাপত্য নকশাও প্রণয়ন করেন বাঙালি বিজ্ঞানী স্থপতি। এভাবেই বাঙালিরা যুগে যুগে মেধার স্বাক্ষর রেখেছে। মন্ত্রী বলেন বাংলা সাহিত্যও আজ পৃথিবী ব্যাপী সমাদৃত। নতুন লেখকদের লেখার প্রতি আগ্রহ প্রকাশকদের কারনে এটা সম্ভব হয়েছে। তিনি বলেন আমাদের সময় ছাত্র-ছাত্রীদের মাঝে বই পড়ার প্রতি আগ্রহ ছিল। এখন তা কমে গেছে। এখন ছাত্র-ছাত্রীরা স্মার্ট ফোন ব্যবহারের দিকে ঝুঁকে পড়েছে। এটা ভাল লক্ষণ নয়। লেখকরা তাদের লেখনির মাঝে বেঁেচ থাকেন। সব রাজনীতিক জনগণ মনে রাখে না। যারা লিখালিখি বা তাদের জীবনী লিখেছেন তাদের জনগণ মনে রেখেছে। তাই নিজেকে বাঁচিয়ে রাখতে হলে বই পড়তে হবে। এতে মনের চোখ খুলবে। সভাপতির বক্তব্যে মেয়র বলেন অতীতে চট্টগ্রামের বই মেলা আয়োজনে ঢাকার সাথে যথেষ্ঠ ফারাক ছিল। এবারের আয়োজন ভিন্ন আঙ্গিকে হওয়ায় প্রাথমিক ভাবে আমরা সফল হয়েছি। আগামীতে এই বই মেলা জিমনেসিয়ামের সামনের রাস্তা সহ সম্প্রসারন করে  আরো বৃহত্তর পরিসরে আয়োজন করা হবে। আর মেলা ঘিরে নতুন নতুন লেখক প্রকাশক সৃষ্টির প্রয়াস থাকবে। এবং প্রতি বছর নির্ধারিত সময়ে মেলা অনুষ্ঠিত হবে।এবং সভার শুরুতে জাতীয় সঙ্গীতের সাথে সাথে মন্ত্রী জাতীয় পতাকা মেয়র কর্পোরেশনের পতাকা উত্তোলন করে বেলুন উড়িয়ে বই মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। শেষে সভা মঞ্চে মন্ত্রী প্রকাশিত বেশ কটি নতুন বইয়ের মোড়ক উম্মোচন করেন।

আগামীকাল সোমবার চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন আয়োজিত সৃজনশীল প্রকাশক পরিষদ এর সহযোগিতায় নগীরর জিমনেসিয়াম সংলগ্ন বই মেলা মঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে রবীন্দ্র অনুষ্ঠান। কর্মসূচীতে নতুন বইয়ের মোড়ক উম্মোচন, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, একক আবৃত্তি, দলীয় নৃত্য একক সঙ্গীতানুষ্ঠান এর আয়োজন রয়েছে। 

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ বাণী অর্চনা সংসদের

সরস্বতী পূজায় সুতপা-দীপন বৃত্তি প্রদান করলেন মেয়র

চট্টগ্রাম- ১০ফেব্রæয়ারি- ২০১৯ইংরেজী।

বাণী অর্চনা বিদ্যা দেবী সরস্বতী পূজা উদযাপন উপলক্ষে আজ রবিবার দুপুরে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ বাণী অর্চনা সংসদ ২০১৯ আকাশ-স্বীকৃত পরিষদের সকল সদস্যদের উদ্যেগে  অস্বচ্ছল মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে সুতপা-দীপন বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র নাছির উদ্দীন অন্ষ্ঠুানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে অস্বচ্ছল মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা বৃত্তি বিতরণ করেন। এসময় চট্টগ্রাম বি এম এর  সভাপতি অধ্যাপক ডাঃ মুজিবুল হক খান, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের উপাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডাঃ প্রদীপ কুমার দত্ত এবং কাউন্সিলর শৈবাল দাশ সুমন সহ মেডিকেল কলেজ ছাত্র সংসদের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। মেয়র তাঁর সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বলেন অসাম্প্রদায়িক এই ক্যাম্পাসে অসাম্প্রদায়িকতার বার্তা নিয়ে আবার এলো সরস্বতী পূজা। এই পূজাকে কখনোই চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের ছাত্র ছাত্রীরা সনাতন ধর্মাবলম্বীদের একক অনুষ্ঠান মনে করে না। প্রতি বছরের ধারাবাহিকতায় এই বছরও চট্টগ্রামের সবচেয়ে বড় সরস্বতি পূজা আয়োজনের জন্য বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, চমেক চমেকসু সদস্যদের ধন্যবাদ জানান মেয়র।

 চট্টগ্রাম আইন কলেজ : এদিকে বাংলাদেশ ছাত্র-যুব ঐক্য পরিষদ বাণী অর্চণা সংসদ চট্টগ্রাম আইন কলেজ শাখার যৌথ উদ্যোগে পরিষদের সভাপতি সজল দে সভাপতিত্বে জে.এম.সেন হল প্রাঙ্গনে দু:স্থ গরীব মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা সামগ্রী খাদ্য বিতরণ এবং আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র .. নাছির উদ্দীন। পরিষদের সাধারণ সম্পাদক বিটু মুহুরীর সঞ্চালনায় শিক্ষা সামগ্রী খাদ্য বিতরণ কর্মসূচীতে উদ্ভোধনী বক্তব্য রাখেন কলেজ অধ্যক্ষ জাহাঙ্গীর আলম চৌধুরী, বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন মহানগর পূজা পরিষদের সভাপতি এড. চন্দন তালুকদার, জন্মষ্টমী কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক শ্রী বিমল কান্তি দে। উক্ত অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নোমান আল মাহমুদ, আওয়ামীলীগ নেতা মোঃ ইছা, মোঃ রাশেদুল আলম, মহানগর পূজা পরিষদের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সুমন দেব নাথ, কাউন্সিলর শৈবাল দাশ সুমন, মহানগর পূজা পরিষদের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এড. নটু চৌধুরী, পুলক খাস্তগীর, এড. টিপু শীল জয়দেব, রজত সাহা রনি, অপরেশ দাশ, চন্দন পালিত, রেবা বড়য়া, জাফর আলম রবিন, সাজু চৌধুরী, অসীক দত্ত, সুমন দাশ, বিশ্বজিৎ মজুমদার, এম. আই. সাহেদ, ইসমাইল হোসেন শিমুল, অতনু ভট্টাচার্য, বিশ্বজিৎ চৌধুরী, ঋত্বিক দাশ, পূরবী দাশ, সুস্মিতা , শর্মী সেন, টিসু দে, অসিত শীল, সৈকত দাশ, দীপেশ পাল, রুমেল শীল, রানা দে, অস্মীত চক্রবর্তী, পূজন, রুবেল, প্রনব, অভি, সঞ্চিতা দত্ত পিংকি, মাহফুজ, সাদ্দাম প্রমুখ।

সিরাজুল হক মিয়ার মৃত্যুবার্ষিকীতে মেয়রের শ্রদ্ধাঞ্জলী

 চট্টগ্রাম- ১০ফেব্রæয়ারি- ২০১৯ইংরেজী।

চট্টগ্রাম জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি  চট্টগ্রাম পৌরসভার সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান সিরাজুল হক মিয়ার ২৫তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আজ রবিবার সকালে নগরীর চৈতন্যগলিস্থ বাইশ মহল্লা কবরস্থানে মরহুমের কবরে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব নাছির উদ্দীন এসময় কাউন্সিলর তারেক সোলাইমান সেলিম, নাজমুল হক ডিউক, শৈবাল দাশ সুমন, গোলাম মোহাম্মদ জোবায়ের প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। পরে মেয়র মরহুমের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে দোয়া মোনাজাত করেন।

 

সংবাদদাতা

রফিকুল ইসলাম

জনসংযোগ কর্মকর্তা

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন